রায়গঞ্জের সবজি দাম নিয়ন্ত্রণে, বিভিন্ন বাজারে পুলিশ প্রশাসন এবং কৃষি দপ্তরের হানা।

0
127

রেখা রায়,উত্তর দিনাজপুর,৬নভেম্বর; সাতসকালে রায়গঞ্জের বিভিন্ন বাজারে পুলিশ প্রশাসন এবং কৃষি দপ্তরের আধিকারিকরা আলু ও পেঁয়াজের দাম খতিয়ে দেখতে সরজমিন তদন্তে নামলেন শুক্রবার। বৃহস্পতিবার মুখ্যমন্ত্রীর  নির্দেশ এর পরেই প্রশাসনের এই তৎপরতায় খানিকটা স্বস্তির আশ্বাস পাচ্ছেন স্থানীয় মানুষজন। পাইকারি ব্যবসায়ীদের দাবি বর্ধমান পাইকারী বাজারে আলুর দাম নিয়ন্ত্রণ করতে পারলেই সমস্ত জায়গাতে আলুর দাম কমে যাবে। কিন্তু চলতি বছর আলু স্টক কম থাকায় তা কতটা কার্যকর হবে তা নিয়েও সন্দেহ প্রকাশ করেছেন ব্যবসায়ীরা! বিভিন্ন বাজার ঘুরে আধিকারিকদের দাবি তেমন কোনো অসংগতি তারা পাননি। অসংগতি পেলেই ব্যবস্থা গ্রহন করবে প্রশাসন।
বৃহস্পতিবার দুপুরে বিভিন্ন জেলা প্রশাসনের সঙ্গে ভার্চুয়াল বৈঠকে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, প্রত্যেক জেলার জেলাশাসক ও পুলিশ সুপারদের নির্দেশ দেন, আলু পেঁয়াজের দাম উর্দ্ধগতি হয়েই চলেছে। সে দিকে পুলিশ ও প্রশাসনকে যৌথভাবে নজর দিতে হবে। দেখতে হবে ব্যবসায়ীরা যেন সুযোগে বেশি দাম বাড়িয়ে না দেন। এই নির্দেশের পর নড়েচড়ে বসে উত্তর দিনাজপুর পুলিশ প্রশাসন। শুক্রবার সকালে রায়গঞ্জ শহরের বিভিন্ন বাজারে সাধারণ প্রশাসন, পুলিশ প্রশাসন ও কৃষি দপ্তরের আধিকারিকরা যৌথভাবে হানা দেয়। এই দলের সদস্যরা খতিয়ে দেখেন খুচরা ব্যবসায়ীরা আলু পেঁয়াজ কি দামে পাইকারি বাজার থেকে কিনছেন, আর কি দামে বিক্রি করছেন। সমস্ত কিছু খতিয়ে দেখার পাশাপাশি বিভিন্ন ব্যবসায়ীদের সতর্ক করতেও দেখা যায় পুলিশ ও প্রশাসনকে।

যদিও ব্যবসায়ীরা জানিয়েছেন, পাইকারি বাজার এবং খুচরা বাজারে যথেষ্ট সামঞ্জস্য রেখেই বিক্রি হচ্ছে। যদি বর্ধমানের পাইকারি বাজার কে নিয়ন্ত্রন করা যায়, দাম বৃদ্ধির বিষয়টি যদি দেখা যায় তবে আলুর দাম নিজের থেকেই নিয়ন্ত্রণে চলে আসবে। যদিও পাশাপাশি ব্যবসায়ীরা জানিয়েছেন, শেষ মরসুমে আলু তেমন খুব একটা হয়নি, ফলে আলুর দাম কমার সম্ভাবনা খুবই কম।

রায়গঞ্জ পুলিশ জেলার ডিএসপি ডিআইবি প্রদীপ সিংহ বলেন, আমরা বিভিন্ন বাজার খুঁজে দেখছি। অসঙ্গতি পেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তবে এখনো আলু পেঁয়াজের পাইকারি বা খুচরো বাজারে খুব একটা অসঙ্গতি আমাদের নজরে পড়েনি। প্রশাসনিক তৎপরতায় সাধারণ মানুষেরা সামান্য হলেও আশা প্রকাশ করছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here